মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে করণীয় কী?

হাতে থাকা মোবাইল ফোনটি যখন কারণে অকারণে বারবার ঘন ঘন হ্যাং হয়ে যায় তখন আর বিরক্তির সীমা থাকে না। মনে হয় যে, আছার মেরে মোবাইল ফোনটি ভেঙ্গে ফেলি।

আপনার হাতে থাকা মোবাইল ফোনটিও যদি এই ধরনের সমস্যা করে থাকে তবে এই আর্টিকেলটি আপনার জন্যই।

পুরো আর্টিকেলটি পড়লে আপনি মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হয় কেন? এবং মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে করণীয় কী? এ বিষয়ে পরিষ্কার ধারনা পেয়ে যাবেন। সেই সাথে ফোন ঘন ঘন হ্যাং হওয়া থেকে পরিত্রাণ পাবেন।

মোবাইল ফোন হ্যাং হওয়া বলতে কি বুঝায়?

 

মনে করেন আপনি মোবাইলে গেমস খেলতেছেন, ভিডিও দেখতেছেন কিংবা ইন্টারনেট ব্রাউজিং করতেছেন, এখন এসব করার সময় হঠাৎ করেই দেখতেছেন যে আপনার গেমসে চলার মাঝখানে আটকে গেছে, ভিডিও থেমে গেছে, ফোনে যা কিছু চালু ছিলো সে অবস্থাতেই স্থির হয়ে গেছে। আপনি চাইলেও সেসব কাটতে পারতেছেন না কিংবা মোবাইল ফোন অফ অনও করতে পারতেছেন না ইত্যাদি এইসব বিষয়কেই সহজ কথায় মোবাইল ফোন হ্যাং হয়ে যাওয়া বলে।

আমি কিভাবে বুঝবো যে ফোন হ্যাং হয়েছে কিনা?

সহজ ভাষায়, আপনার ফোন ব্যবহার করার সময় যদি ফোন কোনো কাজ না করে এবং সব কিছু স্থির হয়ে যায় তবেই বুঝবেন যে আপনার হাতে থাকা মোবাইল ফোনটি হ্যাং হয়ে গিয়েছে।

 

মোবাইল ফোন কেন হ্যাং হয়?

 

এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন যে মোবাইল ফোন কেন হ্যাং হয়?

মোবাইল ফোন হ্যাং হওয়ার পিছনে অনেক গুলো কারণ রয়েছে। এখান থেকে কারণ গুলো জানার পর আপনার নিজেকেই বুঝতে হবে ঠিক কোন কারণে আপনার ফোনটি হ্যাং হয়েছে।

প্রথমত, ফোন স্টোরেজ ফুল করে রাখা। আমরা অনেকেই ফোনে ডিফল্ট ভাবে যে স্টোরেজ থাকে যাকে অনেকে ফোন মেমোরিও বলে থাকে তা বিভিন্ন ধরনের ফাইল-টাইল দিয়ে ফুল করে রাখি যার কারণেও অনেক সময় ফোন হ্যাং হয়।

দ্বিতীয়ত, মোবাইল ফোনে র‌্যাম ও রোম অল্প থাকা। অনেক মোবাইলে র‌্যাম ও রোম অনেক কম থাকে যার ফলে মোবাইলে তিন চারটা এপস ইনস্টল দিলেই র‌্যাম ও রোম ফুল হয়ে যায়। এবং মোবাইল ঠিক মতো কাজ করতে চায় না। এর ফলেও মোবাইল ফোন হ্যাং হয়ে থাকে।

তৃতীয়ত, মোবাইল ফোনে ভারী ভারী এপস ইনস্টল করে রাখা। বর্তমানে বড় বড় অনেক ধরনের এপস বা গেমস রয়েছে যেগুলোর ফাইল অনেক বেশি এমবির হয়ে থাকে। যেমন: ফ্রি ফায়ার গেমস, পাবজি গেমস, কল অফ ডিউটি ইত্যাদি এ জাতীয় গেমস গুলোর ফাইল অনেক বড় হয়ে থাকে। আর আপনি যদি এই ধরনের এপস আপনার ফোনে বেশি করে ইনস্টল করে রাখেন সেক্ষেত্রেও কিন্তু আপনার ফোনটি হ্যাং হয়ে যাওয়ার সম্ভবনা থাকে।

উপরোক্ত কারণ গুলো ছাড়াও আরও নানা কারণে মোবাইল ফোন হ্যাং হতে পারে। যদি আপনার ফোন অনেক পুরোনো হয়ে যায় তখন তাতে এমনিতেই নানান ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। তবে উপরে আমি যে কারণগুলোর কথা উল্লেখ করেছি এগুলোই সচরাচর মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হওয়ার কারণ হয়ে দাড়ায়।

 

মোবাইল ফোন হ্যাং হলে করণীয় কী?

 

এটি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন যে মোবাইল ফোন হ্যাং হলে করণীয় কী?

কারণ আপনি খুব সম্ভবত এই সমস্যাটি ফেইস করছেন জন্যই হয়তো এই আর্টিকেলটি পড়তেছেন এবং মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে কি করবেন তা জানা প্রয়োজন।

তাই চলুন জেনে নেওয়া যাক যে মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে করণীয় কী।

মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে যা যা করবেন:

  • মোবাইল যত অপ্রয়োজনীয় এপস রয়েছে সেগুলো আনইনস্টল করে দিবেন।
  • মোবইলের ফোন মেমোরি বেশি করে খালি করে রাখবেন।
  • কিছু কিছু বড় এপসের লাইট ভারশন রয়েছে। যেমন: ফেসবুক লাইট, মেসেন্জার লাইট। আপনার ফোনে র‌্যাম রোম কম থাকলে এপসের এই ধরনের লাইট ভারশন গুলো ইউজ করবেন।
  • আপনার ফোনের ডেপলোপার অপশন (Devloper Option) এ গিয়ে Window animation scale, Transition animation scale, Animator duration scale এগুলো সব অফ করে দিবেন।
    মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে যা যা করবেন:
    মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে যা যা করবেন

     

  • Settings এর ভিতর Accounts & sync নামের একটি অপশন রয়েছে, এটিতে প্রবেশ করলে Auto sync data নামের একটি অপশন পাবেন, এই অপশনটি যদি অন করা থাকে তবে অফ করে দিবেন।
    মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে যা যা করবেন
    মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হলে যা যা করবেন

     

  • আপনার ফোনে যদি Bluetooth, Wifi, Location ইত্যাদি এই ধরনের সেবা গুলো যদি সব সময় চালু করা থাকে তাহলে সেগুলোও অফ রাখবেন, শুধু প্রয়োজনে অন করবেন।

 

আশাকরি উপরে উল্লিখিত নিয়ম গুলো অনুসরণ করলেই আপনার মোবাইল ফোন ঘন ঘন হ্যাং হওয়া থেকে রক্ষা পাবেন।

তবে আপনার মোবাইল ফোনটি যদি অনেক ভালো কনফিগারেশনের হয়ে থাকে তাহলে আপনাকে আর এত নিয়ম কানুন মেনে চলতে হবে না।

আর্টিকেলটির কোনো যায়গায় যদি বুঝতে কোনো সমস্যা হয়ে থাকে তা আমাকে কমেন্ট বক্সের মাধ্যমে জানাতে পারেন। আমি যত দ্রুত সম্ভব আপনাকে রিপ্লাই দেওয়ার চেষ্টা করবো।

Spread the love

হ্যালো "ট্রিকবিডিব্লগ" বাসী আমি ওসমান আলী। দীর্ঘদিন থেকে অনলাইনে লেখালেখির পেশায় যুক্ত আছি। Trick BD Blog আমার নিজের হাতে তৈরি করা একটি ওয়েবসাইট। এখানে আমি প্রতিনিয়ত ব্লগিং, ইউটিউবিং ও প্রযুক্তি সহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ টিপস এন্ড ট্রিক্স রিলেটেড আর্টিকেল প্রকাশ করে থাকি।

Leave a Comment